nagorikkantha

ইসলাম শান্তির ধর্ম। কট্টর হিন্দুত্ববাদী সংগঠন বিজেপির পশ্চিমবঙ্গের রাজ্য নেতা জয় ব্যানার্জী সে কথাই বললেন। দক্ষিণ কলকাতার মুসলিম অধ্যুষিত এলাকা মেটিয়াবুরুজের গার্ডেনরিচের এক জনসভায় তিনি নিজেকে সংখ্যালঘু মুসলমানদের পৃষ্ঠপোষক হিসেবে দাবি করেন।

এ সভায় তিনি বলেন, ‘আমি পার্ক সার্কাসের এক সংখ্যালঘু পাড়ায় বড় হয়েছি। আমার দেহরক্ষী, গাড়িচালকসহ ম্যানেজার মুসলিম। আমি তাদের সঙ্গে থাকতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি।

ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে বিপেজির এ রাজ্য নেতা বলেন, ‘আমি পবিত্র কুরআন পড়েছি; ইসলাম ধর্মকে খুব শ্রদ্ধা করি। ইসলাম ধর্ম পালন সম্পর্কে তিনি তার বক্তব্যে বলেন, ‘যদি কেউ সঠিকভাবে ইসলাম ধর্ম পালন করে তাহলে সেই ব্যক্তি ৯৫ বছর অবধি কোনো রোগ ব্যাধি ছাড়াই বাচতে পারে।

উল্লেখ্য যে, পশ্চিমবঙ্গের বর্তমান রাজ্য সরকার তৃণমূল কংগ্রেস মুসলিমদের তোষণ করে বলে আসছিল বিরোধী শিবির। বিশেষ করে মমতা বন্যার্জীর মুসলিমদের অনুষ্ঠানে হিজাব পরে যাওয়া ও ইফতার বণ্টনের বিষয়টিকে বিজেপিসহ বিরোধী শিবির প্রচার করতো।

সংখ্যালঘু মুসলমানদের অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণসহ নানা পদক্ষেপে বহুবার বিরোধিতা করলেও এবার সে পথেই হাঁটলেন বিজেপি নেতা জয় বানার্জী। নিজেকে মুসলিমদের পৃষ্ঠপোষক বলে দাবি করলেন। ইসলামকে শান্তির ধর্ম বলে সমর্থন করলেন।

মুসলিম অধ্যুষিত মেটিয়াবুরুজের গার্ডেনরিচ এলাকার জনসভায় সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি ও শান্তি প্রতিষ্ঠায় জয় ব্যানার্জীর এ ঘোষণা হতে পারে ইসলাম ও মুসলমানদের জন্য এটি একটি ইতিবাচক দিক।